ঈদের বিশেষ টেলিফিল্ম জল জোৎস্না চিত্রায়িত হলো ভালুকায়

29-08-2015
সফিউল্লাহ আনসারী

ঈদের বিশেষ টেলিফিল্ম জল জোৎস্না চিত্রায়িত হলো ভালুকায়
শাহ আবদুল করিমের জন প্রিয় গান ‘আমি এই মিনতি করি রে, সোনা বন্ধু ভুইল না আমারে’ অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে ঈদের বিশেষ টেলিছবি “জল জ্যোৎস্না”।  ভালুকার সন্তান টিভি নাট্য পরিচালক আজাদ কালাম পরিচালিত অনিমেষ আইচ এর রচনায় অশোক বসাক এর চিত্রনাট্য ও স্বপন  নিয়োগীর প্রযোজনায় ঈদের এই বিশেষ টেলিফিল্ম “জল জ্যোৎস্না” স¤পুর্ণ চিত্রায়িত হলো ভালুকায়। 
কাহিনী সংক্ষেপ এমন-প্রসূন আজাদ যৌবনে পদার্পন করার পরও তার মধ্যে শিশু সুলভ ভাবটি কাটেনি। তাদের বাড়ির কামলা(কাজের লোক) রওনক হাসান। রওনক ভালবাসে প্রসূনকে। ধীরে ধীরে প্রসূনও রওনকের ভালবাসা বুঝতে শুরু করে। এমন সময়  প্রসূনের মায়ের বান্ধবী তার শহুরে মডার্ন ছেলে সবুজ খান এর সাথে প্রসূনের বিয়ের কথা তোলে ; কেননা ছেলে বেলা থেকে দুই বান্ধবী প্রসূনের মা ও সবুজের মা ঠিকঠাক করে রেখেছিলেন যে প্রসূন ও সবুজের বিয়ে হবে। সবুজ শহরে থেকে নেশাগ্রস্থ হয়ে পড়ে। 
বখাটে ছেলেকে বিয়ে দিলে ভাল হয়ে যেতে পারে এই বিশ্বাসে সবুজের মা ওদের বিয়ে দিতে আর দেরি করতে চায় না। সবুজ গ্রামে এসে প্রসূনের রূপ দেখে মুগ্ধ হয়। এর মধ্যে সে জানতে পারে প্রসূন রওনক কে ভালবাসে। রওনকও প্রসূনকে চায়। রওনক সবুজকে 
ফেরাতে পারে না। এরপর কি হবে? জানতে হলে চোখ রাখতে হবে টিভির পর্দায়,বললেন কর্তৃপক্ষ । এতে অভিনয় করেছেন প্রসূন আজাদ,রওনক হাসান, খায়রুল আলম সবুজ, মনিরা মিঠু, সবুজ খান ও মাহি খান।ইতোমধ্যে  স¤পাদনার কাজ শেষ হয়েছে।পরিচালক আজাদ কালাম বলেন টেলি ছবিটি মূলত ভাটি অঞ্চলের মানুষের প্রেম ভালোবাসার গল্প নিয়ে গড়ে উঠেছে। যার মূল অবলম্বন শাহ আবদুল করিমের ওই গান। তাছাড়া নিজ উপজেলায় নাটকটি চিত্রায়িত করতে পেরে তিনি আনন্দিত।নাটকটিন শুটিং চলাকালে উৎসুক জনতার ভীড় লক্ষ্য করা যায়। 

সর্বশেষ সংবাদ